আমি অসম্মানিত হয়েছি কোম্যানের দ্বারা : পিয়ানিচ


লিওনেল মেসি থাকাকালীন বিশ্বের যেকোনো ক্লাবের খেলোয়াড়েরাই বার্সেলোনায় খেলার স্বপ্ন দেখত। গত মৌসুমে জুভেন্তাস থেকে এক বুক স্বপ্ন নিয়েই কাতালুনিয়ায় এসেছিলেন মিরালেম পিয়ানিচ। কিন্তু সেখানে গিয়ে তার কোনো আশাই পূরণ হয়নি।

কোচ রোনাল্ড কোম্যান নাকি তাকে দেখতেই পারতেন না! শুরুর একাদশে রাখতেন না। বিভিন্ন সময় নাকি অপমানও করেছেন! সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে এসব অভিযোগ করেছেন বসনিয়া-হার্জেগোভিনার এই খেলোয়াড়।

পিয়ানিচকে বিক্রির চেষ্টায় ব্যর্থ বার্সেলোনা গত বৃহস্পতিবার তাকে এক বছরের জন্য ধারে তুরস্কের দল বেসিকতাসে পাঠিয়েছে। বিশ্বকাপ বাছাইয়ের লড়াইয়ে থাকা পিয়ানিচ ‘মার্কা’কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘জুভেন্তাসে আমি সুখে ছিলাম।

বার্সেলোনা দুই বছর ধরে আমাকে দলে টানার চেষ্টা করেও সফল হয়নি। এরপর আরেকটি সুযোগ পেয়ে তারা লুফে নেয়। আমি খুব খুশি হয়েছিলাম। কারণ ছোট থেকেই দলটিতে খেলার স্বপ্ন দেখতাম।

অনেক আশা ছিল, কারণ রোমা ও জুভেন্তাসে আমি সব সময় শুরুর একাদশে খেলেছি। কিন্তু এখানে (বার্সা) আমি এমন একটা কোচ (কোম্যান) পেলাম, জানি না, তিনি ঠিক কী চেয়েছিলেন।’

৩১ বছর বয়সী এই ফুটবলার আরো বলেন, ‘তিনি আমাকে কোনোকিছু ব্যাখ্যা করতেন না। শিরোপা জিততে দলের ১৭ থেকে ১৮ জনের দরকার হয়। আমার খেলা নিয়ে তার কোনো সমস্যা ছিল না, আবার কোনো অভিযোগও করেননি।

সময় যত গড়িয়েছে, অবস্থা ততই খারাপ থেকে আরো খারাপের দিকে গেছে। সেটা কোনো কারণ ছাড়াই। দলের ভেতরের অনেকেও বিষয়টা বুঝতে পারত না।

এমন অভিজ্ঞতা আমার আগে হয়নি। এর আগে সব কোচের সঙ্গেই ভালো সম্পর্ক ছিল।’ বার্সেলোনায় অসম্মানিত হয়েছেন কি-না, এমন প্রশ্নে পিয়ানিচ বলেছেন, ‘হ্যাঁ, কোচের দ্বারা।’

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন





Source link