যুক্তরাষ্ট্র বিমানবন্দর ছাড়ার পূর্বে নিষ্ক্রিয় ৭৩টি বিমান

যুক্তরাষ্ট্র বিমানবন্দর ছাড়ার পূর্বে নিষ্ক্রিয় ৭৩টি বিমানঃ ‘ভুলের’ পুনরাবৃত্তি করতে চায়নি যুক্তরাষ্ট্র, তাই আফগানভূম ছাড়ার আগে কাবুল বিমানবন্দরে তাদের হেলিকপ্টার এবং বিমানগুলোকে নিষ্ক্রিয় করে দিয়ে গিয়েছে তারা।

সেন্ট্রাল কম্যান্ড হেড জেনারেল কেনেথ ম্যাকেঞ্জি জানিয়েছেন, হামিদ কারজাই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তাদের ৭৩টি সেনা কপ্টার ও বিমানকে অকেজো করে দেওয়া হয়েছে। তার কথায়, ‘ওই বিমান এবং কপ্টারগুলো আর ওড়ার মতো অবস্থায় নেই।

কোনোভাবেই সেগুলোকে ফের চালু করা যাবে না।’

কাবুল বিমানবন্দর নিজেদের দখলে নিয়ে নাগরিকদের উদ্ধারকাজ চালাচ্ছিল আমেরিকার সেনাবাহিনী। কিন্তু তার মধ্যেই তালেবান হুঁশিয়ারি দেয়, ৩১ অগস্টের মধ্যেই উদ্ধারকাজের পাট চুকিয়ে আফগানিস্তান ছাড়তে হবে আমেরিকার বাহিনীকে। সোমবার গভীর রাতেই কাবুল বিমানবন্দর ছাড়ে আমেরিকা।

আফগানিস্তানের এক একটি অঞ্চল যখন দখল করছিল তালেবান, ওই সময় আফগান বাহিনীকে দেওয়া আমেরিকার অত্যাধুনিক অস্ত্র, সাঁজোয়া গাড়ি-সহ বিপুল অস্ত্রভাণ্ডার তালেবানের দখলে চলে যায়।

আরো পড়ূণঃ

আমাদের অনেক সাহায্য করেছে ভারত : তালেবান

ওই ‘ভুলের’ পুনরাবৃত্তি যাতে না হয়, তাই এবার পাকাপাকিভাবে আফগানিস্তান ছাড়ার আগে কাবুল বিমানবন্দরে ৭৩টি সেনা কপ্টার ও বিমান নিষ্ক্রিয় করে দেওয়া হয়েছে বলে দাবি করেছে আমেরিকার সেনাবাহিনী। অবশ্য, তালেবানের দাবি, তারা ওই বিমান ও কপ্টার ব্যবহার করতে পারবে তাদের দবি।